۞ بِسْمِ اللَّهِ الرَّحْمَٰنِ الرَّحِيمِ ۞
অনুবাদকে টিক দিন        


সমগ্র কুরআনে সার্চ করার জন্য আরবি অথবা বাংলা শব্দ দিন...


তথ্য খুঁজুন: যেমনঃ মায়িদা x
সুরা লিস্ট দেখুন

সূরা নাম (Sura Name): �������� ���������� -- Al-Balad -- ������-���������������
আয়াত সংখ্যা: 20
আয়াত নাম্বার আয়াত আরবি
1 শপথ করছি এই নগরের,
[ ������-���������������: 1 ]
لَاۤ اُقْسِمُ بِهٰذَا الْبَلَدِۙ﴿١ ﴾
2 আর তুমি এই নগরের বৈধ অধিকারী হবে।
[ ������-���������������: 2 ]
وَ اَنْتَ حِلٌّۢ بِهٰذَا الْبَلَدِۙ﴿٢ ﴾
3 শপথ জন্মদাতার এবং যা সে জন্ম দিয়েছে তার।
[ ������-���������������: 3 ]
وَ وَالِدٍ وَّ مَا وَلَدَۙ﴿٣ ﴾
4 অবশ্যই আমি মানুষকে সৃষ্টি করেছি ক্লেশের মধ্যে।
[ ������-���������������: 4 ]
لَقَدْ خَلَقْنَا الْاِنْسَانَ فِیْ كَبَدٍؕ﴿٤ ﴾
5 সে কি মনে করে যে, কখনও তার উপর কেহ ক্ষমতাবান হবেনা?
[ ������-���������������: 5 ]
اَیَحْسَبُ اَنْ لَّنْ یَّقْدِرَ عَلَیْهِ اَحَدٌۘ﴿٥ ﴾
6 সে বলেঃ আমি রাশি রাশি অর্থ উড়িয়ে দিয়েছি।
[ ������-���������������: 6 ]
یَقُوْلُ اَهْلَكْتُ مَالًا لُّبَدًاؕ﴿٦ ﴾
7 সে কি ধারণা করে যে, তাকে কেহই দেখছেনা?
[ ������-���������������: 7 ]
اَیَحْسَبُ اَنْ لَّمْ یَرَهٗۤ اَحَدٌؕ﴿٧ ﴾
8 আমি কি তার জন্য সৃষ্টি করিনি চক্ষু যুগল?
[ ������-���������������: 8 ]
اَلَمْ نَجْعَلْ لَّهٗ عَیْنَیْنِۙ﴿٨ ﴾
9 তার জিহবা ও ওষ্ঠদ্বয়?
[ ������-���������������: 9 ]
وَ لِسَانًا وَّ شَفَتَیْنِۙ﴿٩ ﴾
10 এবং আমি তাদেরকে দু’টি পথ দেখিয়েছি ।
[ ������-���������������: 10 ]
وَ هَدَیْنٰهُ النَّجْدَیْنِۚ﴿١٠ ﴾
11 কিন্তু সে গিরিসংকটে প্রবেশ করলনা।
[ ������-���������������: 11 ]
فَلَا اقْتَحَمَ الْعَقَبَةَؗۖ﴿١١ ﴾
12 তুমি কি জান, গিরিসংকট কি?
[ ������-���������������: 12 ]
وَ مَاۤ اَدْرٰىكَ مَا الْعَقَبَةُؕ﴿١٢ ﴾
13 এটা হচ্ছে দাসকে মুক্তি প্রদান।
[ ������-���������������: 13 ]
فَكُّ رَقَبَةٍۙ﴿١٣ ﴾
14 অথবা দুর্ভিক্ষের সময় আহার্য দান –
[ ������-���������������: 14 ]
اَوْ اِطْعٰمٌ فِیْ یَوْمٍ ذِیْ مَسْغَبَةٍۙ﴿١٤ ﴾
15 পিতৃহীন আত্মীয়কে,
[ ������-���������������: 15 ]
یَّتِیْمًا ذَا مَقْرَبَةٍۙ﴿١٥ ﴾
16 অথবা ধূলায় লুন্ঠিত দরিদ্রকে।
[ ������-���������������: 16 ]
اَوْ مِسْكِیْنًا ذَا مَتْرَبَةٍؕ﴿١٦ ﴾
17 অতঃপর অন্তর্ভুক্ত হওয়া মু’মিনদের এবং তাদের যারা পরস্পরকে উপদেশ দেয় ধৈর্য ধারনের ও দয়া দাক্ষিণ্যের।
[ ������-���������������: 17 ]
ثُمَّ كَانَ مِنَ الَّذِیْنَ اٰمَنُوْا وَ تَوَاصَوْا بِالصَّبْرِ وَ تَوَاصَوْا بِالْمَرْحَمَةِؕ﴿١٧ ﴾
18 তারাই সৌভাগ্যশালী।
[ ������-���������������: 18 ]
اُولٰٓىِٕكَ اَصْحٰبُ الْمَیْمَنَةِؕ﴿١٨ ﴾
19 যারা আমার নিদর্শন প্রত্যাখ্যান করেছে তারাই হতভাগ্য।
[ ������-���������������: 19 ]
وَ الَّذِیْنَ كَفَرُوْا بِاٰیٰتِنَا هُمْ اَصْحٰبُ الْمَشْـَٔمَةِؕ﴿١٩ ﴾
20 তাদের উপরই অবরুদ্ধ রয়েছে প্রচন্ড আগুন।
[ ������-���������������: 20 ]
عَلَیْهِمْ نَارٌ مُّؤْصَدَةٌ۠﴿٢٠ ﴾